ব্রেকিংশিক্ষা সংবাদশিক্ষাঙ্গনস্লাইডার

সৌদিতে কওমি শিক্ষার্থীদের উচ্চ শিক্ষার সুযোগ

মদিনা বিশ্ববিদ্যালয় এশিয়ার অন্যতম ‍বৃহ\ ও ধনী রাষ্ট্র সৌদি আরব। যার সরকারি নাম আল মামলাকাতুল আরাবিয়া আস সাউদিয়া। সৌদি আরব শুধু ধনী রাষ্ট্র নয় বরং মুসলিম বিশ্বের পবিত্র তীর্থ। ইসলাম ধর্মের আগমন এ পবিত্র ভূমিতেই হয়েছিলো। তাই মুসলিম বিশ্বের প্রতি সৌদি আরবের একটি দায় ও কাজ করে। পিছিয়ে পড়া মুসলিম দেশগুলোর শিক্ষা ও সংস্কৃতির উন্নয়নে সৌদি আরব প্রতিবছর মুসলিম দেশসমূহের শিক্ষার্থীদের উচ্চ শিক্ষার সুযোগ দেয় দেশের বিশ্ববিদ্যালয়গুলো। বৈশ্বিক র‌্যাংকিংয়ে সৌদি আরবের বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর বেশ এগিয়ে। তার চেয়ে বেশি এগিয়ে শিক্ষার্থীদের শিক্ষাসেবা ও সংশ্লিষ্ট সুযোগ-সুবিধা প্রদানে। সৌদি আরবের উচ্চ শিক্ষাগ্রহণের সুযোগ সবার জন্য উম্মুক্ত। তবে আরবি ভাষা জানা থাকায় মাদরাসা শিক্ষার্থীরা অগ্রাধিকার পেয়ে থাকে। এমনকি কওমি শিক্ষার্থীদেরও রয়েছে অপার সুযোগ। কওমি মাদরাসা বোর্ড কিংবা শুধু মাদরাসার সনদপত্র দিয়েও আবেদন করা যাবে। নিম্নে আবেদনের নিয়ম ও শর্তাবলী তুলে ধরা হলো

আবেদনের শর্তসমূহ : –

১. অনার্স পর্যায়ে ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থীদের বয়স ২৫ বছরের কম হতে হবে। মাস্টার্স পর্যায়ের শিক্ষার্থীদের ৩০ বছর এবং পি. এইচ. ডি. এর জন্য অনুর্ধ্ব ৩৫ বছর হতে হবে।

২. আবেদনকারী যদি সৌদি আরবের অন্যকোন প্রতিষ্ঠান হতে বৃত্তিপ্রাপ্ত হয়, তাহলে তার আবেদন গ্রহন করা হবে না।

৩. ছাত্রীদের বৃত্তি আবেদনের জন্য তাদের কোন মাহরাম সৌদি আরবের বিশ্ববিদ্যালয় অবস্থিত প্রদেশে বৈধ ইকামাধারী হতে হবে।

৪. শিক্ষার্থী যদি কোন কারণে সৌদি আরবে অবস্থিত কোন বিশ্ববিদ্যালয় হতে বহিস্কৃত হয়ে থাকলে অন্য কোন ইউনিভার্সিটিতে তার আবেদন গ্রহণ করা হবে না।

৫. সৌদি আরবের স্থানীয় আইন বৃত্তিপ্রাপ্ত শিক্ষার্থীদের উপর প্রযোজ্য হবে। সুতরাং শিক্ষার্থীদের অবশ্যই তা মানতে হবে।

৬. সৌদি আরবের আইনের বাইরে কোন প্রকার রাজনীতি, সন্ত্রাসবাদ, ও চরমপন্থা অবলম্বন করা যাবে না এবং এসব বিষয়ে আলোচনাও করা যাবে না।

৭. বৃত্তিপ্রাপ্ত শিক্ষার্থীরা বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যয়নকালীন বিশ্ববিদ্যালয়ের তত্বাবধানে থাকবে।

৮. বৃত্তিপ্রাপ্ত শিক্ষার্থীদের তাদের বৃত্তিকালীন নির্দিষ্ট কোর্স সম্পন্ন হলে দেশে ফিরে যেতে হবে।

৯. যারা জন্মগতভাবে মুসলিম না, তাদের ইসলামগ্রহণের সনদপত্র লাগবে।

১০. যারা অনার্স করার জন্য আবেদন করতে চান তাদের উচ্চ মাধ্যমিক পাশের পর পাঁচ বছরের মধ্যেই আবেদন করতে হবে।

প্রয়োজনীয়ডকুমেন্টসসমূহ ১. আলিম বা উচ্চ মাধ্যমিক অথবা সমমানের সার্টিফিকেট।

২. আলিম বা উচ্চ মাধ্যমিক অথবা সমমানের মার্কশিট।

৩. আলিম বা উচ্চ মাধ্যমিক অথবা সমমানের প্রশংসাপত্র।

৪. জন্মসনদ। ৫. পাসপোর্ট। ৬. ছবি (৬*৪) সাইজ। (টুপি ও চশমা ছাড়া, ব্যাকগ্রাউন্ড সাদা) ৭. মেডিকেল ফিটনেস সার্টিফিকেট (জেলা সিভিল সার্জন অফিস থেকে পাওয়া যায়)। ৮. দুজন ইসলামী ব্যক্তিত্বের তাজকিয়া বা চারিত্রিক সনদ। বাংলাদেশে যাদের তাজকিয়া গ্রহণযোগ্য তারা হলেন :-

১. আল্লামা সুলতান যওক নদভী, জামেয়া দারুল মাআরিফ আল ইসলামিয়া, চট্রগ্রাম।

২. মাও: খলিলুর রহমান মাদানী, খতিব, ঢাকা কাটাবন জামে মসজিদ

৩. ওয়ালিউর রহমান খান, মুহাদ্দিস, ইসলামিক ফাউন্ডেশন বাংলাদেশ।

৪. শায়খ আব্দুস সামাদ সালাফি

৫. শায়খ মহিউদ্দিন ফারুকী প্রমূখ।

৬. হাফেজ হলে হিফজ সার্টিফিকেট।

৭. ছাত্রীদের আবেদনের ক্ষেত্রে মাহরাম অভিভাবকের ইকামার কপি।

৮. সকল ডকুমেন্টস্ অবশ্যই সরকার অনুমদিত অনুবাদ সংস্থা থেকে আরবিতে অনুবাদ করে নটারি পাবলিক দ্বারা সত্যায়িত করাতে হবে।

৯. মদিনা বিশ্ববিদ্যলয়ে আবেদন করার জন্য মন্ত্রনালয় ও অ্যাম্বেসির সত্যায়ন করা জরুরি নয়। তবে স্কলারশিপ গ্রহণযোগ্য হলে অবশ্যই উল্লিখিত সনদপত্র সংশ্লিষ্টবোর্ড, শিক্ষা ও পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় কতৃক সত্যায়ন এবং সর্বশেষ সৌদি অ্যাম্বেসি কর্তৃক সত্যায়ন করতে হবে। কওমি শিক্ষার্থীদের আবেদন প্রক্রিয়া ইসলামিক ইউনিভার্সিটি মদিনাতে কওমি মাদরাসার শিক্ষার্থীদের আবেদন করার সুযোগ রয়েছে। আপনি যখন আবেদন ফরমপূরণ করবেন তখন দ্বিতীয় পেইজে একটা অপশন আসবে ๏ Government ๏ Private। তখন যারা সরকার অনুমোদিত বোর্ডের অধীনে তারা Government এবং ক্বওমি মাদ্রাসাসমূহের ছাত্ররা Private সিলেক্ট করবে। আপনি Private সিলেক্ট করলে বাংলাদেশের নির্দিষ্ট কিছু মাদরাসার নাম আসবে। আপনার মাদরসার নাম থাকলে আপনি তা সিলেক্ট করে আবেদন ফরম পূরণ করুন। আর যদি আপনার প্রতিষ্ঠানের নাম না থাকে তাহলে পৃষ্ঠার শেষে দেখবেন Not available লেখা। এটা সিলেক্ট করে আপনার মাদরাসার নাম লিখুন। এখন আপনি যদি তাকমিল শেষ করে থাকেন তবে সেটা দিয়েই আবেদন করা ভাল, আর যদি ফজিলত পর্যন্ত পরে থাকেন তাহলে সেটা দিয়েও এপ্লাই করতে পারেন। আবেদন করতে যা লাগবে উপরোল্লখিত সকল কাগজপত্রের সাথে যদি বেফাক বোর্ড পরীক্ষা দিয়ে থাকেন তবে তার সার্টিফিকেট। নয়তো মাদরাসার সনদ ও মাদরাসার প্রশংসাপত্র। আরবি কোর্স করা থাকলে তার সনদও দিতে পারেন (ঐচ্ছিক)। বাকি প্রক্রিয়া উপরের মতই।

সুযোগ সুবিধাসমূহ

১. বৃত্তিপ্রাপ্ত শিক্ষার্থীদের জন্য বেতন ও পরীক্ষার ফি মওকুফ।

২. বিশ্ববিদ্যালয়সমূহের কোন কোন বিভাগ ও ইনস্টিটিউটসমূহে সংশ্লিষ্ট বইসমূহ বিনা মূল্যে সরবরাহ করা হয়।

৩. যারা কোন প্রকার অকৃতকার্য হওয়া ছাড়াই পরীক্ষায় ‘মুমতাজ’ ফলাফল অর্জন করবে তাদেরকে নির্দিষ্ট সময়ে নির্দিষ্ট হারে অতিরিক্ত স্টাইপেন্ড প্রদান করা হয়ে থাকে।

৪. বিশ্ববিদ্যালয়সমূহের নির্ধারিত রেষ্টুরেন্টগুলোতে শিক্ষার্থীদের খাবারের বিলে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ নির্দিষ্ট হারে ভর্তুকি দিয়ে থাকে।

৫. বৃত্তিপ্রাপ্ত শিক্ষার্থীদের জন্য বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ ফ্রি আবাসনের ব্যবস্থা করে থাকে।

৬. বৃত্তিপ্রাপ্ত শিক্ষার্থীদের জন্য প্রতি মাসে নির্দিষ্ট হারে (অনার্স, মাস্টার্স, পি. এইচ. ডি.) স্তর অনুযায়ী শিক্ষাবৃত্তি ব্যবস্থা রয়েছে।

৭. বৃত্তিপ্রাপ্ত শিক্ষার্থীদের জন্য রয়েছে প্রতি বছর বিনা মূল্যে নিজ নিজ দেশ হতে ঘুরে আসার জন্য বিশ্ববিদ্যালয়ের পক্ষ হতে যাওয়া-আসার টিকিট।

৮. প্রয়োজন অনুযায়ী বিশ্ববিদ্যালয়ের নিজস্ব হাসপাতাল ও সরকারি হাসপাতালসমূহে বিনা মূল্যে চিকিৎসা ও ওষুধের ব্যবস্থা রয়েছে।

৯. বিশ্ববিদ্যালয়ের পক্ষ হতে হজ, ওমরা আদায় করানো হয় এবং বিভিন্ন সময় বিভিন্ন ঐতিহাসিক ও দর্শনীয় স্থানসমূহে শিক্ষা সফরে নিয়ে যাওয়া হয়।

১০. এছাড়া ও সৌদি আরবে বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিতরে ও বাহিরে রয়েছে বিভিন্ন সময়ে সহি দীন, ঈমান আকিদা শিক্ষার বিভিন্ন কোর্স, দারস, যেখানে অনেক সময়েই সংশ্লিষ্ট কিতাবসমূহ বিনা মূল্যে বিতরন করা হয়, কোন কোন সময় শিক্ষাবৃত্তির ব্যবস্থা এবং খাওয়া-দাওয়া ও আবাসনের ব্যবস্থা থাকে।

আবেদনের সময়
২৫ এর ও অধিকবিশ্ববিদ্যালয়ে সৌদি শিক্ষা মন্ত্রনালয় বর্হিদেশের ছাত্রদের বৃত্তি প্রদান করে আসছে। তন্মধ্যে শুধু মাত্র মদিনা ইউনিভার্সিটিতেই প্রায় ৮৫ পার্সেন্ট ছাত্র বাহিরের দেশের বৃত্তি পেয়ে থাকে।

সারা বছরই আবেদন করার সুযোগ থাকে। এ ছাড়া অন্যান্য ইউনিভার্সিটিগুলোতে সীমিত আসনে নির্ধারিত সময়ের জন্য আবেদন করার সুযোগ দিয়ে থাকে।

যা প্রত্যেক ইউনিভার্সিটির ওয়েব সাইটে নিউজ হিসেবে প্রচার করা হয়।

কিছু ওয়েবসাইটের লিংক দেয়া হল

কিং সাউদ বিশ্ববিদ্যালয়, রিয়াদ। ওয়েব সাইটের লিংকhttp://ksu.edu.sa/।   http://ali.ksu.edu.sa/en/content/programs-admission। এই লিঙ্কের মাধ্যমে আবেদন করতে হবে http://aliadmission.ksu.edu.sa/register/arhome.htm।

উম্মুল কুর বিশ্ববিদ্যালয়, মক্কা। অনলাইন আবেদনের লিংক :https://uquweb.uqu.edu.sa/admission/

প্রিন্সেস নুরা বিনতে আব্দুর রহমান ইউনিভার্সিটি ফর উইমেন, রিয়াদ। অনলাইনে আবেদনের লিংক http://www.pnu.edu.sa/ar/Pages/Home.aspx।

কিং ফাহাদ পেট্রোল ঝচধসঢ় মিনারেল বিশ্ববিদ্যালয়, দাম্মাম। ওয়েব সাইটের লিংক http://www.kfupm.edu.sa/।

ইসলামি বিশ্ববিদ্যালয়, মদিনা মুনাওয়ারা। ওয়েব সাইটের লিংক iu.edu.sa।িআবেদনের http://admission.iu.edu.sa/Note.aspx।

কিং আব্দুল আজিজ বিশ্ববিদ্যালয়, জেদ্দা : ওয়েব সাইটের লিংক http://www.kau.edu.sa/Home.aspx।

ইমাম মুহাম্মদ বিন সাউদ ইসলামি বিশ্ববিদ্যালয়, রিয়াদ। ওয়েব সাইটের লিংক http://welcome.imamu.edu.sa/।

দাম্মাম বিশ্ববিদ্যালয়:- আবেদনের করার লিংক http://www.ud.edu.sa/DU/ar/deanship/admission_reg/EXTERNAL_GRANTS_AR

কাসিম বিশ্ববিদ্যালয়, কাসিম। ওয়েব সাইটের লিংক http://www.qu.edu.sa/Pages/Home.aspx।

আল বাহা বিশ্ববিদ্যালয়, আল বাহা। ওয়েব সাইটের লিংক http://portal.bu.edu.sa/web/guest;jsessionid=53b096192b107902d3c208019f2f।

জাযান বিশ্ববিদ্যালয়, জাযান। ওয়েব সাইটের লিংক http://www.jazanu.edu.sa/।

আল জাওপ বিশ্ববিদ্যালয়, সাকাকা। ওয়েব সাইটের লিংক http://www.ju.edu.sa/Pages/default.aspx

নাজরান বিশ্ববিদ্যালয়, ওয়েব সাইট লিংক http://portal.nu.edu.sa/web/guest।

নর্দান বর্ডার ইউনিভার্সিটি : ওয়েব সাইট লিংক http://www.nbu.edu.sa/en/Pages/default.aspx।

 

এ সম্পর্কিত অন্যান্য সংবাদ

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Close